যেভাবে আপনার সাধের শঙ্খ, শাঁখা ও শঙ্খের শোপিসগুলো পরিষ্কার করবেন

যেভাবে আপনার সাধের শঙ্খ, শাঁখা ও শঙ্খের শোপিসগুলো পরিষ্কার করবেন “শাঁখা” দুই শব্দের এই ছোট্ট বাক্যটি কেবলমাত্র একটি সামান্য অলঙ্কার নয়। সনাতন ধর্মাবলম্বী বিবাহিত প্রতিটি নারীর কাছে এই শাঁখার মূল্যায়ন যে কী সেটা লিখে বোঝানোর মতো আসলে কোন ব্যাখ্যা হয়না। শাঁখা সনাতন ধর্মাবলম্বীদের কাছে মহামূল্যবান, শাঁখা ছাড়া সনাতন ধর্মাবলম্বীদের বিয়ে অসম্ভব।
মূল বিষয়ে যাওয়ার আগে আসুন একটু জেনে নেই সনাতন নারীদের মধ্যে এই শাঁখা পরার প্রচলন আসলো কী করে?

পুরাণে আছে-
শঙ্খাসুরের স্ত্রী তুলসী দেবী ছিলেন ভগবান নারায়ণে বিশ্বাসী এক সতীসাধ্বী নারী। আর শঙ্খাসুর ছিল ভগবানবিমুখ অত্যাচারী। তার (শঙ্খাসুর) পাপের শাস্তিস্বরূপ তাকে বধ করার পর ভারত মহাসাগরে ভাসিয়ে দেওয়া হয়। স্বামীব্রতী তুলসী দেবী তা সইতে না পেরে স্বামী এবং নিজের অমরত্বের জন্য ভগবানের কাছে প্রার্থনা করেন। ভগবান প্রার্থনা মঞ্জুর করে তার দেহ থেকে তুলসী গাছ এবং সমুদ্রে হত্যা করা স্বামীর রক্ত বা অস্থি থেকে শঙ্খ বা শাঁখার উৎপত্তি করেন। তুলসী দেবীর ধর্মপরায়ণতায় সন্তুষ্ট হয়ে ভগবান দু’জনকেই ধর্মীয় কাজে নির্ধারণ করে দেন। সেই থেকে পতিব্রতা তুলসীকে চিরস্মরণীয় করে রাখতে সনাতন ধর্মাবলম্বীদের তুলসী ও শাঁখা ব্যবহারের প্রচলন হয়।
এতো গেলো সনাতন ধর্মাবলম্বী নারীদের শাঁখা পরার ইতিহাসের কথা, কিন্তু সমস্যা হল চকচকে সাদা বর্ণের এই অলঙ্কার কিছুদিন ব্যবহারের পরই লালচে বর্ণের হয়ে যায়। শুধু তাই নয় বরং আমাদের শখের কেনা শঙ্খের শোপিসগুলোও একইভাবে এটার আসল উজ্জ্বলতা হারায়। আজ আপনাদের জানাবো কী উপায়ে আপনার হাতের শাঁখা ও শখের শঙ্খের শোপিসগুলো পরিষ্কার করবেন।

যেভাবে শাঁখা ও শঙ্খের শোপিস পরিষ্কার রাখবেনঃ
* একটি বাটিতে সমপরিমাণ পানি ব্লিচ নিন, তবে খেয়াল রাখুন ওই পানিতে যাতে আপনার শাঁখা বা শঙ্খের শোপিস সম্পূর্ণভাবে ডুবে যেতে পারে।
* এবার আপনার হাতের শাঁখা বা শঙ্খের শোপিসটি ঐ পানিতে ডুবিয়ে দিন ও প্রয়োজনে ব্রাশ ব্যবহার করুন পরিষ্কার কাজের সুবিধার্থে।
* কিছুক্ষণ এভাবে পরিষ্কার করে এবার শাঁখা ভালোভাবে ধুয়ে শুকিয়ে নিন।
* সবশেষে এক ফোঁটা পরিমাণ বেবি অয়েল অথবা মিনারেল অয়েল নিয়ে আপনার শাঁখা বা শোপিসে লাগিয়ে একটি নরম কাপড় দিয়ে এটি পলিশিং স্টাইলে লাগিয়ে নিন। এতে করে শাঁখা পরিষ্কার থাকার সাথে সাথেই এর উজ্জ্বলতা ও মসৃণতা দুটোই বজায় থাকবে।
* আপনি চাইলে ভিনেগার দিয়েও আপনার হাতের শাঁখা ও শঙ্খের শোপিস পরিষ্কার করতে পারেন। ভিনেগারে শাঁখা ডুবিয়ে কয়েক মিনিট রেখে দিন এবং পরে একটি শুকনো নরম কাপড় দিয়ে এটি মুছে ফেলুন।

টিপসঃ
* আপনার হাতের শাঁখাটি বা শঙ্খের শোপিস দীর্ঘদিন চকচকে আর সুন্দর রাখতে এটা নিয়মিত পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন রাখুন।
* চেষ্টা করুন এগুলো বেশি সময় ধরে পানির সংস্পর্শে না রাখার।
* খুব বেশি চকচকে রাখার লোভে পরে ঘন ঘন শাঁখা বা শঙ্খের শোপিচ আলাদাভাবে পরিষ্কার করতে যাবেন না, এতে হিতে বিপরীত হবে।
* হাতে পরা শাঁখাগুলোর সাদাভাব বজায় রাখতে খেয়াল রাখুন এগুলোতে যেন তেল মসলার ছিটে না পরে।

Related Posts