বিউটি স্লিপের যত সিক্রেট

বিউটি স্লিপের যত সিক্রেটনিজেকে সুন্দর দেখাক, সেটা কে না চায় বলুন? বিশেষ করে সারা রাত ঘুমিয়ে উঠে সকালে আয়নাটার সামনে গিয়ে নিজের চেহারাটাকে দেখতে সবাই ভালোবাসে। কিন্তু বিপত্তিটা ঘটে তখনই। সকালে ঘুম থেকে উঠে নিজের চেহারার ফোলা ভাব আর এলোমেলো চুল দেখে মেজাজটা বিগড়ে যায় নিমিষেই। ঘুম থেকে উঠে সুন্দর দেখানোর জন্য প্রয়োজন বিউটি স্লিপের। আর এই বিউটি স্লিপের আছে কিছু সিক্রেট।  তাহলে এবার সেই সিক্রেটগুলোই যেনে নেয়া যাক।

রুমের তাপমাত্রা

বিউটি স্লিপের জন্য রুমের তাপমাত্রাটা হওয়া চাই একেবারে পারফেক্ট। খুব বেশি গরম অথবা ঠান্ডা কোনোটাই হওয়া চলবে না। তাপমাত্রা হতে হবে একেবারে স্বাভাবিক অথবা স্বাভাবিকের চাইতে সামান্য ঠান্ডা। সারারাত এয়ারকন্ডিশনার ছেড়ে রাখাও একদমই উচিত নয়।

স্মার্টফোন কিংবা টেলিভিশন

সকালে চেহারাটাকে ফ্রেশ দেখাতে চাইলে রাত জেগে স্মার্টফোনে ফেসবুক কিংবা চ্যাটিং একদমই বন্ধ করে দিতে হবে আপনার। সেই সঙ্গে ঘুমানোর আগে টেলিভিশন দেখার অভ্যাসটাকেও বিদায় জানাতে হবে। সবচাইতে ভালো হয় বেডরুম থেকে যদি টেলিভিশনটাকে সরিয়ে অন্য রুমে নিতে পারেন। এক্ষেত্রে ঘুমানোর আগের সময়টা কাটানোর জন্য ভালো বন্ধু হতে পারে বই।

নির্দিষ্ট সময়ে ঘুম

ঘুমানোর জন্য প্রতিদিন সময়টাকে নির্ধারিত করে ফেলুন। এতে ঘুমটাও সহজে আসবে এবং ঘুম থেকে ওঠার পরে প্রতিদিন চেহারাটাকেও সতেজ দেখাবে। তাই ঘুমের সময়টাকেও একটা রুটিনে ফেলে দিন, পার্থক্যটা নিজেই বুঝতে পারবেন। সেই সঙ্গে প্রতিদিন কমপক্ষে ৮ ঘন্টা ঘুম না হলে চেহারার সতেজতা হারিয়ে যায়।

খাদ্যাভ্যাস

ঘুমানোর আগে খাবারের অভ্যাসেও নিয়ে আসুন খানিকটা পরিবর্তন। ঘুমানোর ঠিক আগেই ভারি খাবার খাবেন না। কমপক্ষে ২ ঘন্টা আগে খাওয়ার কাজটা সেরে ফেলুন। ঘুমাতে যাওয়ার আগে তরল খাবারও অল্প পান করুন। এতে ঘুমটা বেশ ভালো হবে আপনার। আর সেই সঙ্গে ঘুম থেকে ওঠার পরে চেহারাটাও সতেজ দেখাবে।

ত্বক পরিষ্কার

ঘুমাতে যাওয়ার আগে অনেক জরুরী একটি বিষয় হলো ত্বকটাকে সম্পূর্ণভাবে পরিষ্কার করে নেয়া। তা না হলে ত্বকের নানান সমস্যার ভুগবেন আপনি। সেই সঙ্গে ঘুম থেকে ওঠার পরে চেহারাটাকে মলিন দেখাবে। এমনকি ব্রণের সমস্যাও দেখা দিতে পারে। তাই রাতে ঘুমাতে যাওয়ার আগে ভালো ব্র্যান্ডের ফেসওয়াস দিয়ে মুখ ধুয়ে ফেলুন। মেকআপ রিমুভার দিয়ে ভালো করে ত্বক পরিষ্কার করে নিন। চোখের কাজলটা অবশ্যই পুরোপুরি তুলে ফেলবেন। না হলে সকালে ঘুম থেকে উঠে দেখবেন চোখের নিচে কালচে হয়ে আছে।

বালিশের কভার

অবাক হচ্ছেন? ভাবছেন বিউটি স্লিপের সাথে আবার বালিশের কভারের সম্পর্কটা কোথায় তাইনা? বালিশের কভারটা পরিষ্কার না হলে ত্বকের নানান সমস্যা হতে পারে। সেই সঙ্গে সকালে ঘুম থেকে ওঠার পরে ত্বকটাকে দেখাবে নির্জিব। আর তাই বালিশের কভারটা হওয়া চাই পরিষ্কার। বিশেষ করে বালিশের কভারের কাপড়টা সিল্কি হলে সকালে ঘুম থেকে ওঠার পরে চুলগুলোও বেশ ঝলমলে দেখাবে।

অতিরিক্ত শব্দ

ঘুমানোর পরিবেশটা হওয়া চাই নিরিবিলি। নিরবিলি পরিবেশ ছাড়া ঘুমটাও গভীর হয়না। আর তাই চেহারাটাও সজীব দেখায় না সকালে ঘুম থেকে ওঠার পরে। বিশেষ করে সঙ্গীর যদি নাক ডাকার অভ্যাস থাকে তাহলে তো রাতে ঘুমানোই দায় হয়ে যায়। তাই বিউটি স্লিপের জন্য একটু নিরিবিলি পরিবেশ বেছে নিন। তাহলে ঘুম থেকে ওঠার পরে একদম স্নিগ্ধ সুন্দর দেখাবে আপনাকে।

Related Posts